লক্ষ্মীপুরে ভারি বর্ষণে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি,পানির নিচে ডুবে আছে কৃষকের বিস্তীর্ণ ফসলের জমি

অর্থনীতি

লক্ষীপুর জেলা প্রতিনিধি :
বৃহস্পতিবার ভোর রাত থেকে হওয়া শনিবার (২৪ অক্টোবর) সকাল পর্যন্ত ভারি ও মাঝির বৃষ্টি কারণে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার আবিরনগর, পিয়ারাপুর, ভবানীগঞ্জ, চরমনসা, টুমচর, কালিচর,চর কাচিয়া,রায়পু ও চর গাসিয়ার শীতকালীন শাকসবজির সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে। সরেজমিনে চরমনসা গ্রামের ফসলের মাঠ ঘুরে দেখা গেছে, বিস্তীর্ণ ফসলের মাঠে টমাটো, ফুল-কপি, পাতা-কপি,মরিচ, বেগুন, লাল-শাক, মুলার-শাক, মিষ্টি কুমড়ো ও লাউগাছ পানির নিচে ডুবে আছে। কৃষক দ্রুত পাম্প মিশিন দিয়ে ক্ষেত থেকে পানি সরাচ্ছে। মরিচ গাছে ফুল ও মরিচ ধরতে শুরু করেছে। বেগুন ও টমাটো গাছে ফুল ফুটছে। কৃষক সাইফুল হাসান ও আবু ছিদ্দিক ওরপে বাঘা ছিদ্দিক বলেন, ১৫-২০ দিন পর মাঠ থেকে ফসল তুলে বাজার জাত করণ করা যেতো। হঠাৎ দুই দিনের টানা বৃষ্টির কারণে তাদের সকল স্বপ্ন পানির নিচে তলিয়ে গেছে। কৃষক সাইফুল ইসলাম চলতি বছরে ৪ একর জমিতে শীতকালীন শাকসবজি আবাদ করেছেন প্রায় ৫ লাখ টাকা খরচ করে। বাঘা ছিদ্দিক ১ একর জমিতে চাষাবাদ করেন শীতকালীন শাকসবজির। অন্যদিকে ঝলা, পুকুর, খাল ও বিলের চাষ করা সকল খামারিদের খামারের মাছ বের হয়ে যাওয়ায় বিপাকে মৎস চাষিরা। তাই অত্র অঞ্চলের চাষিরা তাদের অপূরনীয় ক্ষতিকে পুষিয়ে নিতে প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করেন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।